Self-care e-book by GRACE

Self-care is one of the most important things that a person needs to master in his life. But it’s a bit more complicated than it seems! Maintaining your well-being inside and out is a task that’s vital for not only your survival, but also for your happiness, success, and peace of mind. All the stress […]

বেঁচে থাকার জন্যে দরকার ভালো থাকা, আর ভালো থাকার জন্যে দরকার ইতিবাচক মনোভাব

সারাদিন রোজা থেকে সন্ধ্যায় ইফতারির সময় পেঁয়াজু আর বেগুনী আমার চাই-ই চাই। গতবছর রমজানে ঢাকায় ছিলাম, আর পরীক্ষার ব্যাস্ততায় এটা সেটা পছন্দের খাবার খেতে পারিনি। এবার তো বাসাতেই ছিলাম। কিন্তু এবারেও বিধি বাম! বাজারে লকডাউন চলছে। কি করি কি করি ভাবতে ভাবতেই, ইউটিউব দেখে গ্যাসের চুলায় বানিয়ে ফেললাম পেঁয়াজু আর বেগুনী। সম্প্রতি করোনা প্যানাডেমিক দেশে[…..]

দুর্বিষহ কোয়ারেন্টাইন

কি এক আশ্চর্য পরিবর্তনের মাধ্যমে মােড় নিল এই পৃথিবী, এই ধরণী মায়ের গতি। চেনা-অচেনা সবকিছুরই এক অজানা রূপ দেখিয়ে দিল ২০২০। স্থিতি অস্থিতি সুস্থিতি ইত্যাদি কত রকমেরই বৈজ্ঞানিক শব্দের ব্যবহার দেখিয়ে দিল ২০২০ মানুষের স্বাস্থ্যের ক্ষেত্রে। কোভিড-১৯ এসে বিচ্যুত করে দিল সমগ্র পৃথিবীর স্বাভাবিক ভারসাম্য, থমকে দিল প্রকৃতিকে, নষ্ট করে দিল জীবনের স্বাভাবিক ছন্দ। কোয়ারেন্টিন,[…..]

মহামারীতে বিষন্নতা নয় নিজেকে সময় দিন, প্রাণোচ্ছল থাকুন

আত্মহত্যা, বিষন্নতা নিয়ে কথা বললে সবাই বলে, “মনে ঈমান নাই তাই এসব বলে।” “এত ভালো রেজাল্ট,তোমার আবার কিসের ডিপ্রেশন” “চেষ্টা না করলে তো হেরে যাবাই, এখানে মন খারাপের কি আছে” “কত মানুষ মারা যাচ্ছে, সেদিকে খেয়াল নেই আবার মনের দিকে নজর!” ফেসবুক ফ্রেন্ড দের নানা ক্রিয়েটিভিটি,রাতের বেলা হাহাকার যেন হুহু করে উঠে মনের মাঝে।  […..]

করোনাকালে আমি (মার্চ-সেপ্টেম্বর)

  কোভিড -১৯ মহামারীর কারণে বিশ্বের অর্ধেকের বেশি মানুষ লকডাউনে ঘরে বন্দি হয়ে পড়েছে।আমিও তার ব্যতিক্রম নই।সদ্য বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হয়ে মাত্র ২মাস ক্লাস করি।তারপরেই করোনায় বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ হয় ১০দিনের জন্য।১৭ই মার্চ চলে আসি বাড়িতে।দিন যত যায় করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি তত অস্বাভাবিক হতে থাকে,ছুটিও বাড়তে থাকে মাসের পর মাস।দেশব্যাপী করোনা আক্রান্তের হার,মৃত্যু..বিশেষ করে বাড়ির আশেপাশের পরিচিতজনের[…..]

ইতিবাচক মনোভাবের ফলাফল ইতিবাচকই হয়

ইতিমধ্যে আমরা সকলেই কোভিড-১৯ সম্পর্কে অবগত এবং অনেকটা সময় এই মহামারির মধ্যে দিয়ে আমরা পার করেছি এবং এখনো করছি।সত্যি বলতে,এই মহামারির মধ্যে জিবন অতিবাহিত করাটা আসলে খুবই দূর্বিষহ।এর ভেতর থেকে ইতিবাচক মনোভাব রাখাটা যদিও একটা কঠিন কাজ,তবুও আমরা চাইলে আমাদের মনোবলকে শক্ত করার জন্য আমরা ইতিবাচক মনোভাব ধারণ করতে পারি।বর্তমানে,এই মহামারির সময়ে আমি অনেক ভালো[…..]

হার না মানা মনোভাবই আমাকে সবসময় ইতিবাচক রেখেছে

মার্চের শেষ দিকে মহামারি করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে দেশজুড়ে অঘোষিত লকডাউন জারি করা হয়। এতে একে একে আলো নিভে যায় দেশের অফিস আদালত থেকে শুরু করে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমনকি মন্দির-মসজিদেরও। ক্লাস-টিউশনি-কোচিং নিয়ে ইটকংক্রিটের যান্ত্রিক এই শহরে হাঁপিয়ে ওঠাদের একজন হয়ে অপ্রত্যাশিত ছুটি পেয়ে বেশ আনন্দই লাগছিল, তখন বারবার মনে হয়েছিল, যাক করোনার করুণায় কয়েকটা দিন বাড়ি থেকে[…..]